প্রথম পাতা » Featured » জমে উঠেছে মাগুরায় কোরবানীর পশুর হাট : দাম পাচ্ছেন দেশি গরু বিক্রেতারা

জমে উঠেছে মাগুরায় কোরবানীর পশুর হাট : দাম পাচ্ছেন দেশি গরু বিক্রেতারা

জমে উঠেছে মাগুরায় কোরবানীর পশুর হাট : দাম পাচ্ছেন দেশি গরু বিক্রেতারা

প্রতিদিন ডেস্ক : আসন্ন ঈদ-উল আযাহা উপলক্ষে মাগুরায় জমে উঠেছে কোরবানীর পশু হাট। ঈদ যত এগিয়ে আসছে, ততই বাড়ছে গরু, ছাগলের বেচা-কেনা। ক্রেতাদের পাশাপাশি হাটগুলোতে ভিড় করছেন বিভিন্ন জেলা থেকে আসা ব্যাপারিরা। মাগুরার হাটগুলোতে ভারতীয় গরু না আসায় ভাল দাম পেয়ে খুশি স্থানীয় বিক্রেতা ও খামারীরা। ক্রেতাদের পছন্দের শীর্ষে রয়েছে ছোট ও মাঝারী আকারের স্বাস্থ্যবান গরু। দাম একটু বেশি হলেও পছন্দ মত গরু কিনতে পেরে সন্তোষ প্রকাশ করছেন ক্রেতারাও।
মাগুরা জেলার প্রধান পশু হাটগুলো হচ্ছে, সদরের রামনগর, কাটাখালী, আলমখালী, শত্রুজিৎপুর, আলোকদিয়া, মহম্মদপুরের বেথুলিয়া, নহাটা, শালিখার আড়পাড়া, সীমাখালী, পুলুম, চতুরবাড়িয়া, শ্রীপুরের লাঙ্গলবাধ ও সারঙ্গদিয়া। নিয়মিত এ হাটগুলোর পাশাপাশি কোরবানী উপলক্ষে বসেছে আরো অস্থায়ী অসংখ্য গরু, ছাগলের হাট। স্থায়ী-অস্থায়ী এ সকল হাটে জেলার বিভিন্ন স্থান থেকে খামারী, ব্যাপারী ও গৃহস্থরা গরু-ছাগ কেনা বেচার জন্য আসছেন। বিশেষ করে গত ২-৩ দিন পশুর হাটগুলোতে বেশী ভিড় লক্ষ করা গেছে।
রামনMagura-Gorue-Hat-2গর, কাটাখালী ও আড়পাড়া হাটসহ বিভিন্ন হাটে গিয়ে দেখা গেছে, ছোট-বড়, মাঝারী বিভিন্ন আকারের অসংখ্য গরু উঠেছে। সেই সাথে হাটে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক ছাগল নিয়ে আসছেন বিক্রেতারা। কোরবানী দিতে ইচ্ছুক ক্রেতারা হাটের এ প্রান্ত থেকে ও প্রান্তে ঘুরে-ফিরছেন সাধ্যে’র মধ্যে তাদের পছন্দের গরুটি কেনার জন্য। অধিকাংশ ক্রেতারা বাড়ি ফিরছেন কোরবানীর গরু কিনে। কেউ-কেউ আবার অপেক্ষা করছেন শেষ মুহূর্তের ন্য।
সদর উপজেলার রামনগর হাটে গরু কিনতে আসা বগিয়া গ্রামের কৃষক নেতা সিদ্দিক হোসেন বলেন, হাটে পছন্দ সই গরুর অভাব নেই। তিনি তার সাধ্যর মধ্যে ৫০ হাজার টাকায় মাঝারী আকারের একটি ভাল গরু কিনেছেন। গত বছর এ ধরনের গরু ৪৪-৪৫ জাহার টাকায় বিক্রি হয়েছিল। তিনি জানান, এবার ভারতীয় গরুর চাপ কম থাকায় দেশী গরুর দাম একটু বেশী। রবিউল ইসলাম নামে একজন ক্রেতা জানান, হাটে ৭০-৮০ হাজার থেকে দেড়, দুই লাখ টাকা দামের অনেক বড়-গরু হাটে এসেছে। এলাকার অনেকে ভাগে এ ধরনের গরু কিনে কোরবানীতে শরিক হচ্ছেন।
রামনগর হাটে ফরিদপুর থেকে আসা আছাদ খান নামে এক ব্যাপারী জানান, তিনি মাগুরার বিভিন্ন হাট থেকে ছোট ও মাঝারী আকারের গরু কিনে ঢাকা এবং চট্রগ্রাম নিয়ে বিক্রি করছেন। এবার ভারতীয় গরুর চাপ কম থাকায় স্থানীয় বাজার থেকে একটু বেশি দামে গরু কিনতে হচ্ছে। তার পরেও তার লাভ হচ্ছে। তবে শেষ সময়ে দেশে ভারতীয় গরুর চাপ বাড়লে দেশীয় গরু খামারী ও ব্যবসায়ী সকলেই ক্ষতিগ্রস্থ হবেন।
শ্রীপুরের ঘাষিয়াড়া, আমতৈলসহ বিভিন্ন স্থান থেকে গরু বিক্রেতা ও খামারীরা জানান, এবার হাটে ছোট ও মাধ্যম সাইজের গরু চাহিদা বেশী। এ ধরনের গরু এনে তারা ভাল দাম পেয়েছেন। কিন্তু ক্রেতাদের কাছে বড় গরু’র তেমন চাহিদা নেই।
রামনগর হাট ইজারাদার নূরে আলম দিপু জানান, এ বছর দেশে ভারতীয় গরুর আমদানী কম। যে কারণে দেশী গরুর ব্যাপারিরা ভাল দাম পাচ্ছেন।
জেলার প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা: কানাই লাল স্বর্ণকার জানান, এ বছর মাগুরা জেলায় মোট খামারের সংখ্যা ছিল ২৯ হাজার ৯৭৭ টি। যার মধ্যে গরুর ১৫ হাজার ৪০০ টি ও ছাগলের খামার ১৩ হাজার ৬৭৭ টি। ব্যক্তি পর্যায়ে এ সকল খামারে কেমিকেলমুক্ত গরু, ছাগল মোটতাজা করা হয়েছে। যা জেলার মোট চাহিদার চেয়ে অনেক বেশি।
তিনি আরো জানান, খামারিরা যাতে কেমিকেল যুক্ত খবার ব্যবহার না করে সে বিষয় খেয়াল রাখার জন্য ১ জন পশু ডাক্তাকে প্রধান করে ৫ সদস্য বিশিষ্ট মোট ৫ টি মনিটরিং টিম গঠন করা হয়েছে। এ সকল টিম মাগুরার বিভিন্ন নামকরা হাটগুলোতে ঈদের আগের দিন পর্যন্ত মনিটরিং করবে। যে কেউ ইচ্ছা করলে গরু-ছাগল কেনার আগে সুস্থতা পরীক্ষ করে নিতে পারবেন।
মাগুরা সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ইয়ারুল ইসলাম বলেন, প্রতিটি গরু ও ছাগলের হাটে শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বিরাজ করছে। যে কারণে ক্রেতা-বিক্রেতারা নিরাপদে কেনা-বেচা করতে পারছেন। জাল টাকা লেনদেন, চাঁদাবাজিসহ বিশৃঙ্খলা বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
মাগুরার অতিরিক্তি পুলিশ সুপার তারিকুল ইসলাম জানান, কোরবানীর পশুর হাটগুলোতে প্রয়োজনীয় নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে সার্বক্ষনিক প্রতিটি হাটগুলোর সার্বিক অবস্থা মনিটরিং করা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Logo_image
সম্পাদক: জাহিদ রহমান
নির্বাহী সম্পাদক: আবু বাসার আখন্দ
প্রকাশক:: জাহিদুল আলম
যোগাযোগ:
পৌর সুপার মার্কেট ( দ্বিতীয় তলা), এমআর রোড, মাগুরা।
ফোন: ০১৯২১১৬১৬৮৭, ০১৭১৬২৩২৯৬২
ইমেইল: maguraprotidin@gmail.com